চাষিরা কাঁচা পাটের ন্যায্যমূল্য পাচ্ছেন: পাটমন্ত্রী

বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বলেছেন, পৃথিবীজুড়ে পাটের কদর ও চাহিদা বৃদ্ধি পাওয়ায় পাটচাষিরা ও কাঁচা পাটের ন্যায্যমূল্য পাচ্ছেন। চলতি পাট মৌসুমে কাঁচা পাটের গড়দর ৩ হাজার টাকা পর্যন্ত পাওয়া যাচ্ছে, যা গত বছরের তুলনায় প্রায় ৫০ শতাংশ বেশি। ফলে চাষিরা ভবিষ্যতে অধিক পরিমাণে পাট চাষে আগ্রহী হবেন।

বুধবার (২১ অক্টেবার) সচিবালয়ে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ে বিজেএমসির বন্ধ ঘোষিত মিলসসমূহের অবসরপ্রাপ্ত ও অবসানকৃত শ্রমিকদের পাওনা পরিশোধ সংক্রান্ত সভা শেষে তিনি এ কথা বলেন।

পাটমন্ত্রী বলেন, পাট খাত পুনরুজ্জীবিত করতে বিজেএমসির নিয়ন্ত্রণাধীন ২৫টি মিলে কর্মরত সব স্থায়ী শ্রমিকের গ্র্যাচ্যুইটি, পিএফ ও ছুটি নগদায়নসহ গোল্ডেন হ্যান্ডশেক সুবিধার মাধ্যমে চাকরি অবসানপূর্বক উৎপাদন কার্যক্রম গত ১ জুলাই, হতে বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

শ্রমিকদের আর্থিক অবস্থা বিবেচনা করে প্রধানমন্ত্রী ২৫টি মিলের ২৪,৬০৯ জন স্থায়ী কর্মরত শ্রমিকদের সমুদয় পাওনা বাবদ প্রায় ৪ হাজার কোটি টাকা এবং ২০১৩ সনের পরে হতে অবসরপ্রাপ্ত ১০,১০৭ জন শ্রমিকের সাকল্য পাওনা বাবদ প্রায় ১ হাজার কোটি টাকাসহ মোট প্রায় ৫ হাজার কোটি টাকা চলতি অর্থবছরে এককালীন পরিশোধের সিদ্ধান্ত হয়।

শ্রমিকদের ভবিষ্যৎ আর্থিক নিরাপত্তা ও সুরক্ষার স্বার্থে প্রধানমন্ত্রী প্রত্যেকের পাওনার ৫০ ভাগ নগদে এবং অবশিষ্ট ৫০ভাগ তিন মাস অন্তর মুনাফা ভিত্তিক সঞ্চয়পত্র আকারে পরিশোধ করার নির্দেশনা দেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *